আত্মহত্যা প্রবণতা; সতর্ক হওয়ার সময় এখনই

- নাজমুল আহসান

গতকাল ড্যাফোডিল বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী শারমিন আত্মহত্যা করেছেন। আমার মনে আছে, কয়েক বছর আগেও দেশে আত্মহত্যার প্রবণতা অনেক বেড়ে গিয়েছিল; সুখের কথা- এই হার এখন অনেক কম। তবে এখন আত্মহত্যার হার কম বলে আহ্লাদিত হওয়ার কিছু নেই, একটা অপমৃত্যুও কখনো কাম্য নয়।

কোন পরিস্থিতিতে পড়লে একটা ছেলে কিংবা মেয়ে আত্মহত্যা করে, আমি সে প্রসঙ্গে কিছু বলতে চাচ্ছি না। আত্মহত্যা কখনো সমস্যার সমাধান হতে পারে কিনা, এটাও বোধকরি বাহুল্য আলোচনা। আমি বলতে চাচ্ছি আপনার দায়িত্ব সম্পর্কে।

শারমিন নামের এই মেয়ে আত্মহত্যার সিদ্ধান্ত হুট করে নেননি। তাঁর হঠাৎ মনে মরে যেতে ইচ্ছে করল, আর বহুতল ভবনের ছাদে উঠে লাফ দিলেন, ব্যাপারটা এমন না। নিশ্চয়ই অনেক দিনে ধরেই ইচ্ছেটা তাঁর মধ্যে কাজ করেছে। কোনো কারণে একদিন ইচ্ছে হয়েছিল জীবনটা শেষ করে দেওয়ার, তারপর আরেকদিন, তারপর আরেকদিন। তিলে তিলে সেই ইচ্ছে তাঁর মনে শিকড় বসিয়েছে। শেষে গতকাল হয়তো আবেগ নিয়ন্ত্রণ না করতে পেরে আত্মাহুতি দিয়েছেন।

স্বাভাবিক মৃত্যুর কথা ভাবলেই একজন মানুষের আচরণে পরিবর্তন চলে আসে। শারমিনের মতো কেউ যখন আত্মহত্যার পরিকল্পনা মাথায় নিয়ে দিনের পর দিন কাটিয়েছেন, নিশ্চয়ই তাঁর আচরণে সেটা প্রকাশ পেয়েছে, তাঁর চলাফেরায় ছাপ পড়েছে। এতো বড় একটা মানসিক চাপ নিয়ে কেউ সুস্থ্য থাকতে পারে না। শারমিনের কাছের মানুষেরা কি সেটা টের পাননি? শারমিনের বন্ধুরা, বান্ধবীরা কিংবা তাঁর প্রেমিক; কেউ কিছু বুঝতে পারলেন না! কেউ বুঝতে পারেননি, কথাটা পরোক্ষভাবে অসত্য; আসলে কেউ বুঝতে চেষ্টা করেননি।

আপনাকে বলছি, সতর্ক থাকুন। আপনার খুব কাছের কেউ হয়তো এই মানসিক অসুস্থতা নিয়ে সময় পার করছেন। বন্ধু-বান্ধবী কিংবা আত্মীয়-পরিজনের কেউ এ ধরণের বৈকল্যের মধ্যে আছেন কিনা, দৃষ্টি রাখুন। কখনো কারো আচরণে অস্বাভাবিক কিছু মনে হলে তাঁর সাথে ঘনিষ্ঠভাবে মিশুন, তাঁকে সময় দিন। আড্ডায় মাতিয়ে রাখুন। ইঙ্গিতে তাঁকে বুঝান, জীবনটা অত্যন্ত মূল্যবান। হুট করে একটা কিছু করে বসলে তাঁর একার ক্ষতি না, পরিবারের ক্ষতি, দেশের ক্ষতি।

আপনি সজাগ থাকুন, সবাইকে সজাগ থাকতে বলুন। আর একটা আত্মহত্যাও যেন না হয়।

(মোট পড়েছেন 147 জন, আজ 1 জন)
শর্টলিংকঃ

২টি মন্তব্য

  1. জীবনটা অত্যন্ত মূল্যবান। হুট করে একটা কিছু করে বসলে তাঁর একার ক্ষতি না, পরিবারের ক্ষতি, দেশের ক্ষতি। ১০০ % সঠিক । (y)

মন্তব্য করুন